গরমিলে ছিল ঈদের ছবিগুলো হিসেবটা

বিনোদন রিপোর্ট: এবার ঈদের ছবি মুক্তির হিসেবটা ছিল গরমিলে। শুরুর দিকে মুক্তির তালিকায় ছিল ৬টি ছবি। সেই সংখ্যায় শেষে এসে দাঁড়ায় ৩টিতে। ছবিগুলো ‘ক্যাপ্টেন খান’, ‘জান্নাত’ ও ‘মনে রেখো’। যদিও ‘বেপরোয়া’ ছবিটি অনেক বিতর্কের পর একটি হলে মুক্তি দেওয়া হয়। তবে আনুষ্ঠানিকভাবে সেই ছবিটি মুক্তির কোনো ঘোষণা আসেনি। সাধারণ সময়ের চেয়ে ঈদের সময় ছবির বাজারটা বড় থাকে। অনেক বন্ধ থাকা হলগুলো ধুলো মুছে ঠিকঠাক করে ঈদের ছবি মুক্তির জন্য। তবে সেই প্রস্তুতি থাকলেও ঈদের ছবিগুলো তেমন আনুষ্ঠানিক প্রচারের মাধ্যমে মুক্তি পায়নি। অথচ ঈদে ছবি মুক্তি নিয়ে চলে প্রতিযোগিতা। ঢাকাই ছবিগুলো প্রচারণা বিমূখ বরাবরই। কিন্তু সেই বিমূখতা ঈদের ছবির বেলায় বেমানান। প্রতিটি ছবির জন্য বিভিন্ন ভাগে বাজেট থাকলেও প্রচারণা নিয়ে কোনো বাজেট থাকে না। তবে সম্প্রতি কয়েকটি ছবি সেই উদাহরণের বাইরে। প্রচারের কারণে বিগত কয়েকটি ছবি বেশ সফলতার সাথে চলেছে। তবুও প্রচারণার দিকে কোনো ভ্রুক্ষেপ নেই সংশ্লিষ্টদের। এবার ঈদে সর্বাধিক হল পায় ‘ক্যাপ্টেন খান’ ছবিটি। বিগ বাজেটের এই ছবির নায়ক শাকিব খান হওয়ায় পরিচালক বা প্রযোজক হয়তো প্রচারণা নিয়ে তেমনটা মাথা ঘামায়নি। কারণ দেশের বর্তমান ছবির বাজারে শাকিব খান মানেই হিট। তাই ইউটিউবে ছবির ট্রেইলর ও গান রিলিজ দিয়েই দায় সেরেছেন ছবির সংশ্লিষ্টরা। ‘ক্যাপ্টেন খান’ ছবির পর ‘মনে রেখো’ ছবিটির হল সংখ্যা ছিল বেশি। মাহির সাথে জুটি বেঁধে এই ছবিতে দেখা গেছে কলকাতা বনিকে। কিন্তু এই ছবির হালও সেই এক। অন্যদিকে ‘জান্নাত’ ছবিটি সেন্সর পায় ঈদের প্রায় এক মাস আগে। হাতে এতো সময় পাওয়ার পরেও কোনো ধরনের প্রচারণার পরিকল্পনা ছিল না তাদের। অথচ সবচেয়ে কম হল পাওয়া নিয়ে মন খারাপ ছবির পরিচালক ও নায়কা-নায়িকার। বড় বাজেটের প্রচারণা না থাকলেও ঈদের মাস খানিক আগে থেকে শহর বা গ্রামে পোস্টারের মাধ্যমে প্রচারণার একটি নিয়ম ছিল ঢাকাই চলচ্চিত্রে। এমনকি বিভিন্ন এলাকায় মাইকিং করেও প্রচারণা কাজ চলতো। কিন্তু এবার সেরকম কোনো আভাসও পাওয়া যায়নি। ‘জান্নাত’ ছাড়া বাকি দুটি ছবি সেন্সর পায় ঈদে কয়েকদিন আগে। সেই সময় মুক্তির প্রস্তুতি নিতে গিয়ে হয়তো প্রচারণা নিয়ে বাড়তি চাপ নিতে চাননি সংশ্লিষ্টরা।  ঢাকাই ছবি নিয়ে যখন অনেক সম্ভাবনার বুলি আউড়াচ্ছেন যারা তারাই যেনো প্রচারণার বিষয়টি ছোট করে দেখছেন। অথচ দেশের বাইরের ছবিগুলো প্রচারণা মধ্য দিয়ে ছবির লগ্নি নিশ্চিত করে ফেলেন।

আপনার মতামত দিন